কাঁটাতার

প্রণবকুমার মুখোপাধ্যায়

 

যতবার চোখ ফেরাই, বারবারই আপাতনিরীহ

শব্দদুটি ভেসে ওঠে শব্দহীন চোখে।

একটিতে অস্বসিত্ম, তাই অন্ধকার। উদ্দীপ্ত আলোকে

অন্যটিতে মৈত্রী যাবতীয়।

 

এ তো গেল যার-যার নিজস্ব দৃষ্টির প্রসারণ।

রাজনীতি-কূটনীতি স্বতন্ত্র পরিধি ছুঁয়ে থাকে।

আর তাই চিরকেলে সহজ আনন্দ-বেদনাকে

ভাবে, মিথ্যে! অসার বন্ধন।

 

ভাবুক। মাটির নিচে, স্থলে জলে প্রাণ, বৃক্ষলতা

অনেকটা উপরে নীলাকাশ –

প্রতিটি মুহূর্তে, প্রতি ঋতুতে-ঋতুতে, বারোমাস –

ছুঁয়ে চলে একই স্রোত, একই ছন্দ নিয়ত বহতা।

 

ছিঁড়ে ফেলি কাঁটা তাই, প্রসারিত করি তাই তার,

মৈত্রীর আলোয় দেখি কেটে যাচ্ছে জমাট আঁধার \

শেয়ার করুন

Leave a Reply