বিচ্ছেদের কবিতা

লেখক:

সরকার মাসুদ

 

সন্ধ্যার আল্পনা শেষ

জঙ্গলবাড়ির ঢালে ঝলমল করছে আলোপোকা!

শেয়ালেরা বালাজন নদীর চড়ায়।

মনে-মনে ওই পোকাদের ডাকো,

সূর্যোদয়ে বটপাতার ঝিলিমিলি

আর চাবির গোছার মতো ধানশীষে

অকালশিশির দেখে নির্বিকার থাকো।

তেঁতুলতলায় ভাঙা নৌকার পাটাতনে মনউদাস থাকো।

রাতের খোঁপা থেকে ঝরে যাবে কালো সৌরভ

অতনু বকুল ফুটবে ভোরবেলা তোমার অনুভবে

ছিলে তোমার ভেতর শুধুই তোমার,

খোলস ভাঙার পর পৃথিবীর হবে!

 

ধুতুরা ফলের রস আলোকিত করে দিলো ভেতর আঙিনা

রংধনু স্বপ্ন ছড়িয়ে দিলো পাতায় পাতায়

সব বৃক্ষের অসনাক্ত হৃদরোগ প্রেমিকের মনে পুঁতে

কেন বসে থাকো ধীবর কুটিরে, সিকি জ্যোৎস্নায়!

 

আকাশের অলংকার সন্ধ্যাতারা ওঠে

নিরুদ্দেশ মানুষের আকাঙ্ক্ষারা ফোটে কাশফুলে-ফুলে

যদি পুষে রাখো হৃদয়ের তৃণগন্ধী অভিমান

এই আমি বিচ্ছেদ হয়ে বেঁচে থাকি

আমি জোনাকির আলোয় অস্পষ্ট সরু সাঁকো হয়ে থাকি!

সোশ্যাল মিডিয়া

নিউসলেটার