হে সব্যসাচী

লেখক:

হাফিজ রশিদ খান

এমন জানালা একখানা খুলে দিয়েছ হে সব্যসাচী, যা দিয়ে আসে শুদ্ধ বঙ্গীয় সুবাসমাখা গন্ধবহ। আমি পেছনের থেকে সামনে, আরও সামনে যাই ওই সম্ভ্রান্ত সমীরে ভেসে-ভেসে। বসে থাকি কিছুক্ষণ জনকোলাহলের নাটম-লে। হৃদয় প্রমোদিত হয়ে এলে ফিরে যাই সুবিস্তীর্ণ ধানি মাঠের কিনারে। পাখিদের কলস্বর আর পাতাদের গুঞ্জনে, গোধন আর রাখালের মিলিত শব্দায়নে দেখি তোমার প্রস্ফুটিত প্রকৃত অবয়ব। তুমি তো নগর-মহানগর মন্থন শেষে ক্লান্ত শরীরের ভারে এসে জিরোচ্ছ বিটপীর ছায়ে। বৃষ্টির বিন্দুর মতো নোনা ঘাম নামছে তোমার চোয়াল বেয়ে। তুমি নির্ভার হচ্ছ ধীরে-ধীরে বেঁচে থাকার তাৎপর্য বিষয়ে।
তুমি চলেছ জীবন-উত্তর জীবনের দিকে দৃঢ় পায়ে বাংলাদেশের একটি সাংস্কৃতিক মানচিত্র সৈয়দ শামসুল হক…

সোশ্যাল মিডিয়া

নিউসলেটার