অজস্র ঝর্ণার গান

মেহেদী ইকবাল

 

যখন আকাশ মেঘে মেঘে ঢেকে যায় আর বজ্রপাত

কেঁপে ওঠে গৃহস্থের মন! তুমুল বৃষ্টিতে ভিজতে থাকে সার্কাসের হাতি

জননী হাতির সাথে হেঁটে যায় শৈশব

ওই তো দেখা যায় চাঁদ, নাকি ঝুলে থাকা স্বপ্ন?

পাহাড়ের ওপরে অবাক করা অশ্বারোহী, অব্যর্থ নিশানা তিরের।

এখন এই অন্ধকারে দেখি নিদ্রামগ্ন মৎস্যকুল

যখন নিমগ্ন ঢেউ কিছু উচ্ছ্বাস আর বয়ে চলা নিরন্তর

কিছু আগে তৈরি হওয়া ঢেউ অজস্র ঢেউয়ের সাথে কোথায় যে হারায়!

আর সমুদ্র দেখি, গাঙচিল, মাছের আড়তে ভিড়

কোথাও তৈরি হয় মাছেদের মমি, সৈকতে কাঁকড়াদের ছুটে চলা!

 

পিথাগোরাসকে দেখি ঝাউবনে একা! আর যত বিচিত্র মিথ

কোথাও কি উঠে আসে অপ্সরা মারমেইড জেলেদের জালে?

পেছনে অশ্ব আর সম্মুখে মানুষ

সোনালি ডানার পরি এখন কি উড়ে আসে আমাদের কালে?

 

তবু আমরা স্বপ্ন দেখি পুষ্প আর পাখিদের গ্রাম

আর যত অশুভ অস্তিত্ব গলে যায় দুপুরের রোদে

 

অজস্র ঝর্ণার গান ছড়িয়ে যায় ইথারে ইথারে!

Leave a Reply

%d bloggers like this: