মুখ

মুহাম্মদ ফরিদ হাসান

মূলত আমি একা নই

অবিকল আমার মতো দেখতে

আমার কণ্ঠস্বর, হাসি-কান্নার রঙে

পৃথিবীর অসংখ্য প্রান্ত জুড়ে ঘুরে বেড়ায়

আরো অসংখ্য মানুষ।

আমি এখানে কবিতা লিখি

অ্যামাজনের গহিনে যে থাকে

আদিম জীবন আর শ্বাপদ স্পর্শে

তার সাথে আমার মুখ, চোখ-চুল

মিলে যায় হুবহু যমজের মতো।

অথবা একদিন পিরামিডের ভেতরে থাকা

জংধরা মমির মুখ আচমকা

আমাকে দেখে হেসে উঠে

জড়াতে চেয়েছে নিবিড় আলিঙ্গনে –

আমি নাকি তারই ভাই – তুতেনখামেন!

আমার মুখ নিয়ে চলে গেছে সহস্রজন

গতকালও ফিরেছি সৃষ্টির আদি-নক্ষত্রে

উদ্ভ্রান্ত আমি ঘুরেছি প্রান্তরে

জেনেছি খেয়ে গেছে গন্ধম আমারই মতো কেউ!

আমি আমার সবগুলো মুখ ফেরত চাই

অতিক্রান্ত দিন ও রাত ফেরত চাই

অথচ তখনো দেখি অসংখ্য মানুষ

হুবহু আমারই মুখের মতো, হেঁটে যাচ্ছে

আদি থেকে অনমেত্ম … হেঁটে যাচ্ছে …

Leave a Reply

%d bloggers like this: