মৃত্তিকার ঘর

লেখক:

শ্যামলী মজুমদার

 

সম্পর্কগুলি এখন শীতরাত পাড়ি দিচ্ছে…

গ্রহ যেরকম পুঞ্জীভূত শক্তি কেন্দ্র ছেড়ে

ছুটে ছুটে এসেছে ছায়াপথ ধরে শীতল শীতলতর যুগ,

কোটি আলোকবর্ষব্যাপী বরফ আর হিমবাহের গল্প…

তারপরও বলো : বাসযোগ্য হলো কি

আমাদের এই মৃত্তিকার ঘর!!

 

তুমি আমি আরো কত মুখ

শত সহস্র চোখ নীল বেদনায় উন্মুখ,

দূর ছায়াপথে হেঁটে যায় একে একে

একা পরম্পরাহীন, আকাশজুড়ে রেখেছে

আমাকে তোমাকে, ভালোবাসার রাত

বাম হাত ডান পথ ঘুরে এসে এখন ক্লান্ত,

বসেছে তোমার আমার মাঝখানে

নীলাভ বিড়াল এক, উষ্ণতা চায় বুঝি!

 

তবু দেখি সুতো কেটে লাল ঘুড়ি সব

পড়ে আছে পায়ের পাশে,

হাত বাড়াবো কি! ভয় পাই!

সম্পর্কগুলি শীতলতর হচ্ছে ক্রমশ… কোথাও…

হয়তো দূরে কোনো ভিন গ্রহে

অন্য এক পৃথিবী বসে আছে ওপারে কিছু গল্প নিয়ে,

হয়তো বা শীত শেষে মানুষ যাবে সেসব মানুষেরই কাছে…!!!