অসুখ

কাজলেন্দু দেঅসুখ থেকে উঠে-আসা ঘরবাড়ি সারাদিন রোদ্দুরে ঝিমোয়। রোদ্দুরে কি তাপ আছে? বুঝতে পারি না। আমি আঙুলে জড়াই মৃত্যু; সভ্যতার সংকটে, দ্বৈরথে চেয়ে দেখি – দূরাগত মেঘমল্লারের সুরধ্বনি বৃষ্টির আশায় […]

Read more
প্রতীক্ষা

কাজলেন্দু দে   নাটাকরঞ্জ লতার নিচে নির্জনতা, পাশে ধ্যানমগ্ন না-ফেরার দিন কুয়াশাকুহক পার হয়ে উঠে আসা মাইক্রোবাসে কয়েকটি উদ্বিগ্ন মুখ মনে সচকিত পুরনো পাতার শব্দ এলোমেলো ভাবনার মেঘ দূরে, নদীতীরে […]

Read more
বার্ধক্য কিংবা নকশিকাঁথার গল্প

কাজলেন্দু দে ব্যস্ততা কুড়িয়ে রাখি গাছের কোটরে। শীতবস্ত্র বুনতে বুনতে ক্রমশ এগিয়ে আসে শীত – শূন্যঘরে রং-তুলি ধুলোময়লা জুতো ও বিলাপ। স্বরলিপি রাতের ফসলগুলি কবেই কুয়াশায় নিরুদ্দেশ! আজকাল ভ্রু ছুঁয়ে […]

Read more
সুলেখার জন্য শোকগাথা

কাজলেন্দু দে   নিসর্গের গ্রন্থাগারে আমরাই পাঠক ছিলাম। কখনো জীবনানন্দ দাশ এসে ঝিঁঝি পোকার ডাক আর ট্রামের চাকার শব্দ শুনতেন। ঘাটশিলা থেকে আসতেন বিভূতিভূষণ – নদী, আকাশ, গাছপালা আর পাখিদের […]

Read more
প্রকৃতি

কাজলেন্দু দে   ক্রমে বইমেলা ঘুরে ঘরে ফিরে আসি। এই ঘরে নীড়হারা পাখির উড়াল আর বিধবা সকালের স্বপ্ন মিলেমিশে থাকে – এককোণে পথ থেকে তুলে আনা দীর্ঘশ্বাসও থাকে। চৌকাঠ পেরোলে […]

Read more