ব্যাকুলতাকালীন ছুটি

অথির চক্রবর্তী

 

পৃথিবীতে বসন্তকালীন ছুটি চাই, চাই ব্যাকুলতাকালীন ছুটি

ঢেউয়ের ওপর ঢেউকালীন ছুটি মঞ্জুর হোক হাসতে হাসতে

কোকিলের স্বরলিপিগুলো পাতার হারমোনিয়ামে তোলা থাক

শিমুলফুল সোমত্ত মেয়ের মতো সিঁদুরের প্রেমকে উজ্জ্বল করে

হোলি ঘোষণা করুক আজ সারাদিন!

আমার চোখ তোমার দিকে নদী, ঠোঁট কাকাতুয়ার মতো বাড়াক সম্প্রীতি

আঙুল নিকট প্রতিবেশী হলে মুখ তোমার ভ্যান গঘের ক্যানভাস …

তখন কত রিম কাগজ দরখাস্তের জন্য মুখিয়ে থাকে। চোখে ছুটি। ঠোঁটে ছুটি।

পায়ে ও হাতেও ছুটির নীল বিদ্রোহ

 

অফিসপাড়া যায় দীর্ঘ কোনো পাতার বর্ষণেই ডুবে

টাপুরটুপুর পাতার হার গলায় পরে বালিহাঁসেরাও ভাসে ওই অবাক নীলিমায়

ঐচ্ছিক নয়, সর্বজনীন ছুটি নিয়ে আসব আমি মাতাল হাওয়ায় …

কুঁড়ি নয় – ফুলের মতো ফুটতে ফুটতে আসব আমি

চোখের জলে আলপনা-আঁকা মাটির ঘরে!

Leave a Reply

%d bloggers like this: