বিষাদরেণুতে ঢেকে আছে পাখা

তমিজ উদ্দীন লোদী

 

মুখোমুখি দাঁড়িয়ে আছে তারা। নৈঃশব্দ্য ও বিষাদের ভেতর, কথোপকথনহীন। ঠান্ডা হিম বাতাস বইছে চাবুকের মতো।

 

সেন্সরারোপিত কাগজের পৃষ্ঠায় বীভৎস মুখ। গ্রহণলাগা চাঁদ থেকে ছিটেফোঁটা জ্যোৎস্না এসে নেমেছে খোলা পাতায়। অদূরে নড়ছে বিষকাঁটালির ঝোপ। ওখানে হামা দিয়ে বসে আছে মুক্তির সৌরভ, গেরিলা সৈনিক।

 

রক্তাপস্নুত আকাশ ও মাটির সংরাগে বুঁদ হয়ে আছে নিসর্গ। মৈথুনবিমুখ পাখিরাও নতমুখ, বিষাদরেণুতে ঢেকে আছে পাখা। ইস্পাতে বারুদে ঠাসাঠাসি সময় ঝিম হয়ে আছে।

 

প্রতীক্ষা ও নীরবতার মাঝখানে ঢেউ তুলছে আদিগন্ত অক্লান্ত জীবন-কাঁপানো বাতাস। তাই দেখো কখন যেন ঘূর্ণি হয়ে ওঠে।

Leave a Reply