ইকবাল আজিজ

শেখ মুজিবকে আমি প্রথম দেখেছিলাম ময়মনসিংহ শহরে –

সন্ধ্যার অন্ধকারে আকাশের নিচে সেই আমার প্রথম মহামানব দর্শন;

সে যেন বিশুদ্ধ মরুভূমিতে শান্তির জলধারা বর্ষণ –

তখন আমার বয়স মাত্র এগারো বছর।

কলেজ রোড থেকে আরো অনেক বালকের সঙ্গে

দলবেঁধে গিয়েছিলাম সার্কিট হাউস ময়দানে;

১৯৬৪ সালের অক্টোবর মাসে

শেখ মুজিব এসেছেন ফাতেমা জিন্নাহর নির্বাচনী প্রচারণায়

সঙ্গে আছেন আজম খান ও অন্যান্য নেতা।

বেশিরভাগ নেতাই উর্দুতে ভাষণ দিলেন;

কিন্তু মুজিব দাঁড়ালেন বাংলা ভাষার প্রতিটি বর্ণকে সঙ্গে নিয়ে –

সারাদেহে বিদ্রোহের জয়গাথা এক সুদর্শন মহামানব।

বক্তৃতা দিলেন, পূর্ববঙ্গের স্বায়ত্তশাসন ও গণতন্ত্রের দাবিতে –

এ এক নতুন অভিজ্ঞতা আমার;

মঞ্চের খুব কাছে দাঁড়িয়ে হাততালি দিতে লাগলাম

বন্ধুদের সঙ্গে।

মুজিব তখন জনতাকে লক্ষ করে

বললেন, ‘আপনারা সবাই এমন জোরালো কণ্ঠে আওয়াজ

তুলুন, যেন পিন্ডিতে আইয়ুব খানের রাজপ্রাসাদ

                                ঝনঝন করে ভেঙে যায়।’

সেই আমার প্রথম মহামানব দর্শন –

১৯৬৪ সালের অক্টোবর মাসে বাঙালি জাতির মহামানব

বক্তৃতা করেছিলেন মূলত শোষণ ও বঞ্চনার বিরুদ্ধে –

                                আমাদের স্বায়ত্তশাসনের দাবিতে।

সে আমার প্রথম মুজিবের প্রতি আনুগত্যের সূচনা – মহামানব মুজিবকে দেখার প্রথম স্মৃতি।

Leave a Reply